২ জুলাই ভারত-বাংলাদেশ ম্যাচেও আলিম দার!

স্পোর্টসঃ
আলিম দারের নামটা আসলেই যেন বাংলাদেশের সমর্থকদের ভ্রু কপালে উঠে। আগে থেকেই একটা অজানা শঙ্কা তৈরি হয়।

আফগানিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচেও টিভি আম্পায়ার হিসেবে তার সিদ্ধান্ত নিয়ে রয়েছে ক্ষোভ।

২ জুলাই বার্মিংহ্যামের ভারতের বিপক্ষেও টিভি আম্পায়ার হিসেবে এই পাকিস্তানিকে পাচ্ছে বাংলাদেশ।

বিশ্বকাপের আগেই কোন ম্যাচে কারা আম্পায়ার থাকবেন তা আগে থেকেই নির্ধারিত। সেই হিসেবে এই সংবাদটি নতুন নয়, তবে আশঙ্কাটি আসছে নতুন করে। বিশেষ করে লিটন দাস ও সৌম্য সরকারের আউটে টিভি আম্পায়ার হিসেবে আলিম দারের সিদ্ধান্তটা সত্যি ব্যাপক আলোচনা-সমালোচনার জন্ম দিয়েছে।

আফগানিস্তানের ম্যাচে মুজিব-উর রহমানের বলে যে ক্যাচটি হাসমতউল্লাহ ধরেছেন সেটি নিয়ে বিতর্ক তৈরি হয়। শর্ট কাভারে হাসমতউল্লাহ বল ধরেই উল্লাস করতে থাকেন। ফিল্ড আম্পায়ার নিশ্চিত না হওয়ায় সফট সিগন্যাল আউট দেখিয়ে সিদ্ধান্তটা পাঠান থার্ড আম্পায়ারের কাছে। রিপ্লেতে দেখা যায় হাসমতউল্লাহ ধরার আগে বল মাটিতে স্পর্শ করে। তবুও টিভি আম্পায়ার আলিম দার আউটের সিদ্ধান্ত দেন।

একইভাবে সৌম্য সরকারের এলবি আউট দেয়া নিয়ে নিয়েও রয়েছে বিতর্ক। অন ফিল্ড আম্পায়ার আউট দেয়ার পর বাংলাদেশ রিভিউ নেয়। রিপ্লেতে দেখা যায় বলের সামান্য অংশ লেগ স্ট্যাম্প বরাবর ছিল। কিন্তু টিভি আম্পায়ার অন ফিল্ড আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত বহাল রাখেন। এই দুটি বিতর্কিত সিদ্ধান্তের পরও ওই ম্যাচে বাংলাদেশ জয়লাভ করে।

এবার ভারতের বিপক্ষেও টিভি আম্পায়ার হিসেবে সেই আলিম দার রয়েছেন।

গত আসরে ভারতের বিপক্ষে কোয়ার্টার ফাইনালে তার একটি সিদ্ধান্তও ছিল রীতিমতো বিতর্কিত। রুবেলের বলে রোহিত শর্মার ক্যাচ মাহমুদউল্লাহ ধরলেও সেটিকে নো বল দেন আলিম দার। তখন এ নিয়ে রীতিমতো সমালোচনা হয়। অতীত স্মৃতি ও সাম্প্রতিক ঘটনা সবমিলিয়ে সমর্থকদের মধ্যে রীতিমতো ক্ষোভ বিরাজ করছে।

-কেএম

Print Friendly, PDF & Email
FacebookTwitter