শিল্পকর্ম বিকৃত করায় শিল্পী ফারুকের ১শ ২০ কোটি টাকার মামলা দায়ের

অনলাইনঃ
জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের বিরুদ্ধে চিত্রকর্ম বিকৃতের অভিযোগে কপি রাইট আইনে ১শ ২০ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ মামলা করা হয়েছে।

ময়মনসিংহ জজ কোর্টে মামলাটি দায়ের করেছেন চিত্রশিল্পী হোসাইন মোহাম্মদ ফারুক।
রোববার (১৭ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে ময়মনসিংহ প্রেসক্লাব মিলনায়তনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে বিষয়টি জানান এ চিত্রশিল্পী।

সংবাদ সম্মেলনে ফারুক বলেন, ‌২০১২ সালে আঁকা কবি নজরুলের একটি চিত্রকর্ম তার অনুমতি ছাড়া কবি নজরুল বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ বিকৃতভাবে বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি স্যূভেনির-এ মূদ্রণ করে। যা ২০১৭ সালে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম সমাবর্তন উপলক্ষে প্রকাশ করা হয়।

তিনি বলেন, এ স্যূভেনিরের প্রচ্ছদসহ রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, ধর্মমন্ত্রী, শিক্ষামন্ত্রী, সংস্কৃতিমন্ত্রী, উপাচার্য প্রমুখের বাণীর পৃষ্ঠাসহ প্রায় প্রতিটি পাতায় আমার আঁকা এই শিল্পকর্মটি উল্টো করে মূদ্রণ করা হয়। এতে আমার নামটিও স্বভাবতই উল্টে গেছে।

প্রকাশনাটির কোথাও কৃতজ্ঞতা স্বীকারে আমার নামটিও লেখা নেই, যা একজন শিল্পীর জন্য মানহানি ও অবমাননাকর।

এরপর শিল্পী হোসাইন মোহাম্মদ ফারুক এর প্রতিবাদ জানিয়ে একটি উকিল নোটিশ পাঠান বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকে। তবে এর কোন জবাব দেয়নি তারা। পরে গত ১৪ ফেব্রুয়ারি ময়মনসিংহ জজ কোর্টে কপিরাইট আইনে ১শ ২০ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে মামলা করেন ফারুক।

মামলাটি আমলে নিয়ে আগামী ২৬ ফেব্রুয়ারি শুনানির দিন ধার্য করেছেন আদালত।

ক্ষতিপূরণের মামলা থেকে আদায়কৃত অর্থ স্কুলের শিশুদের চিত্রকর্ম প্রশিক্ষণে খরচ করা হবে জানিয়ে শিল্পী ফারুক বলেন, আমি শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অনুমোদনে বৃহত্তর ময়মনসিংহের মাধ্যমিক বিদ্যালয়গুলোতে চারুকলা শিক্ষার শুভেচ্ছা দূত হিসেবে ড্রইং কর্মশালা পরিচালনা করি নিজ খরচে। এ মামলা থেকে আদায়কৃত অর্থের সিংহভাগ ব্যয় করা হবে এই প্রজেক্টে।
-ডিকে

Print Friendly, PDF & Email