বঙ্গবন্ধুকে বলা হয় রাজনীতির কবিঃ রাবি উপাচার্য

রাবি প্রতিনিধিঃ
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. এম আব্দুস সোবহান বলেছেন, ‘বঙ্গবন্ধুকে বলা হয় রাজনীতির কবি।তাঁর ভাষণ পৃথিবীর অন্যতম ভাষগুলোর মধ্যে একটি। বাঙালি জাতির জন্য এটি গর্বের, সম্মানের এবং আনন্দের।আমরা যে হীনমন্য জাতি নই, সময়ে সময়ে আমরা প্রকাশ করেছি’।

তিনি আরও বলেন, ‘কলকাতা ইসলামিয়া কলেজে ছাত্ররাজনীতি করার সময় যে পাকিস্তানি নেতারা তার পক্ষে ছিল পরবর্তীতে তারাই বঙ্গবন্ধুর বিরোধীতা করে। বঙ্গবন্ধু না থাকলে বাংলা ভাষা বিলীন হয়ে যেতে পারতো, বঙ্গবন্ধুর অবদান কোন অংশে কম নয়। যার ঋণ কখনো বাঙ্গালি জাতি শোধ করতে পারবে না। আজকের এই দিনেই বাঙালি জাতির ভিত্তি স্থাপন হয়েছিল। বঙ্গবন্ধু না থাকলে বাংলাদেশের স্বাধীনতা বিলীন হয়ে যেতে পারতো। বঙ্গবন্ধুর অবদানেই আজকের বাংলাদেশ বিনির্মাণ। কৃতজ্ঞতার সাথে তাকে আমরা স্মরণ করছি।’

বৃহস্পতিবার সকাল ১০ টায় ঐতিহাসিক ৭ মার্চ দিবস উপলক্ষে বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ মিনার মুক্তমঞ্চে এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন।

ছাত্র-উপদেষ্টা প্রফেসর লায়লা আরজুমান বানুর সঞ্চালনায় এসময় উপস্থিত ছিলেন, উপ-উপাচার্য অধ্যাপক আনন্দ কুমার সাহা, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক এ কে এম মোস্তাফিজুর রহমান আল-আরিফ, রেজিস্টার অধ্যাপক এম এ বারী, প্রক্টর অধ্যাপক মো. লুৎফর রহমান, জনসংযোগ দপ্তরের প্রশাসক অধ্যাপক প্রভাষ কুমার কর্মকার, সাবেক উপ-উপাচার্য অধ্যাপক নূরুল্লাহ, সাবেক ছাত্র-উপদেষ্টা অধ্যাপক জান্নাতুল ফেরদৌস প্রমুখ।

এর আগে একটি বর্ণাঢ্য আনন্দ র‌্যালি বের করে এবং বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। র‌্যালিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগ, আবাসিক হল, শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ অংশ নেয়।

-জিএম

Print Friendly, PDF & Email