ইমরানকে পূর্ণ মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রী হলেন ইন্দিরা

অনলাইনঃ

প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী ইমরান আহমদকে পূর্ণমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক বেগম ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরাকে প্রতিমন্ত্রী হিসেবে নিয়োগ করেছে সরকার। মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে শুক্রবার এ তথ্য জানানো হয়।

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের সংবিধানের ৫৬ অনুচ্ছেদের (২) দফা অনুযায়ী রাষ্ট্রপতি অ্যাডভোকেট আব্দুল হামিদ তাদেরকে নিয়োগ দেন। গতকাল বৃহস্পতিবার তাদেরকে নিয়োগ দেওয়া হলেও আজ শুক্রবার প্রজ্ঞাপন প্রকাশ করেছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব জানিয়েছেন, আগামীকাল শনিবার সন্ধ্যায় বঙ্গভবনে নতুন মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রীর শপথগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

২০১৮ সালের ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পর গত ৭ জানুয়ারি টানা তৃতীয়বারের মতো সরকার গঠন করে আওয়ামী লীগ। ৪৬ সদস্যের ওই মন্ত্রিসভায় ২৪ মন্ত্রী, ১৯ প্রতিমন্ত্রী ও তিনজন উপমন্ত্রী রয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার হাতে রেখেছেন ছয়টি মন্ত্রণালয়।

মন্ত্রিসভা গঠনের পর প্রথমবারের মতো গত ১৯ মে মন্ত্রিসভা পুনর্বিন্যাস করা হয়। স্বাস্থ্য  ও পরিবার কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসানকে তথ্য মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী করা হয়। এছাড়া ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তফা জব্বারকে একই মন্ত্রণালয়ের ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের দায়িত্ব দেওয়া হয়। আর তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের একক দায়িত্ব পান প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। একই সঙ্গে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়কে ভাগ করে স্থানীয় সরকার বিভাগের মন্ত্রী করা হয় তাজুল ইসলামকে। আর পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় বিভাগের প্রতিমন্ত্রী করা হয় স্বপন ভট্টাচার্যকে।

সিলেট-৪ আসনের এমপি ইমরান আহমেদ চৌধুরী এতদিন প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের দেখভাল করে আসছিলেন। এই মন্ত্রণালয়ে কোনো পূর্ণমন্ত্রী ছিল না। অপরদিকে আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক ফজিলাতুন্নেসা ইন্দিরা, টানা তিন মেয়াদে সংরক্ষিত আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেয়ে সংসদ সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। তিনি এবার মন্ত্রিসভায় যুক্ত হবেন এমন গুঞ্জন অনেকদিন থেকেই চলছিল।

-ডিকে

Print Friendly, PDF & Email
FacebookTwitter