আপনি কি জানেন প্রদাহ বা ইনফ্লামেশন কি?

আয়শা সিদ্দিকা, পুষ্টিবিদ

➡➡প্রদাহ বলতে কেবল ব্যাথাই নয় জ্বর, জয়েন্ট পেইন, মাসেলে টান পরা, পেটে জ্বালা-পোড়া করা, মাথাব্যথা, ক্লান্তি এমনকি র‍্যাশ বা ব্রন উঠাকেও ইনফ্লামেশন বলা হয়।

⛔⛔ইনফ্লামেশন মূলতঃ আর্থাইটিস, হাঁপানি, পেপটিক আলসার, টিবি, সাইনোসাইটিস ইত্যাদি রোগে বেশি দেখা দেয়।

📌📌আমরা কি জানি কোন খাবারগুলো প্রদাহের জন্য দ্বায়ী বা প্রো ইনফ্লামেটরি?? আর কোনগুলো এন্টি ইনফ্লামেটরি??

⛔⛔প্রো ইনফ্লামেটরি খাবারগুলো হলো সাদা চিনি, সুগার সিরাপ, জ্যাম, জেলি, কোল্ড ব্রেকফাস্ট সিরিয়াল,পেস্ট্রি, ডোনাটস, চিপস ও ক্রেকারস, প্রসেসড মাংস, ফ্রোজেন ডিনার, ক্যান জাত ফুড, রেস্টুরেন্ট ফুড, পিৎজা, পাস্তা, নুডলস, ফ্রাইস, হোয়াইট ব্রেড ও রাইস, কুকিস, কেক, ক্যান্ডি, চকলেট, সোডা, কোলা, এনার্জি ড্রিংকস, ক্যান ফ্রুট জুস, লো ফ্যাট বা ফ্যাট ফ্রি ডেইরি প্রডাক্ট ইত্যাদি।

➡➡লিস্ট দেখে মনে প্রশ্ন জাগতেই পারে তাহলে খাবো কি????
তাই না??

⛔⛔যদি লক্ষ্য করে থাকেন তবে দেখবেন যে প্রদাহ কারক খাবার গুলো কোনো না কোনো ভাবে প্রসেসড করা।প্রসেসিং এর সময় এসব খাবার থেকে একদিকে যেমন পুষ্টি উপাদান নষ্ট হচ্ছে তেমনি নতুন কিছু যোগও হচ্ছে।

আমাদের ফিজিক্যালি অলস লাইফ স্টাইলের পাশাপাশি এ ধরনের খাবারের কারনেই ইনফ্লামেশন হয়।

⛔⛔তাহলে আসুন জেনে নিই কোন খাবার গুলো ইনফ্লামেশন বিরোধী।

আমাদের চার পাশে যথেষ্ট পরিমানে ফ্রেশ এবং প্রাকৃতিক খাবার রয়েছে।।
যেমন–

আমরা সোডা, কোলা বা এনার্জি ড্রিংকসের বদলে ফ্রেশ ফ্রুট জুস খেতে পারি।

এছাড়াও বিভিন্ন রকম সবজি, বাদাম, বীজ, হোল গ্রেইন, ডিম, সামুদ্রিক মাছ ও হার্ব, অরগানিক মুরগি, হাঁস, ঘাস খাওয়া গরু, ভাল তেল যেমন অলিভ অয়েল, নারকেল তেল, বাটার, ঘি, মধু, প্রাকৃতিক মসলা, সামুদ্রিক লবন খেতে পারি। এরাই হলো এন্টি ইনফ্লামেটরি ফুড।

⛔⛔এবং আমরা যদি এধরনের ফ্রেশ খাবারগুলোকে আমাদের লাইফ স্টাইলে অভ্যস্ত করতে পারি তবে নানান দিক থেকে আমরা সুস্থ্য থাকবো।

-আয়শা

Print Friendly, PDF & Email
FacebookTwitter